২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপ সরাসরি দেখাবে যেসব টিভি চ্যানেল

392

২০১৮ ফিফা বিশ্বকাপ, ফিফা বিশ্বকাপের ২১তম আসর হবে। এটি হলো একটি চতুর্বাষিক আন্তর্জাতিক ফুটবল প্রতিযোগিতা যেখানে ফিফার অন্তর্ভুক্ত পুরুষদের জাতীয় ফুটবল দলগুলো প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে।

২ ডিসেম্বর ২০১০ সালে অনুষ্ঠিত নিলামের পর, রাশিয়ায় ১৪ জুন হতে ১৫ জুলাই ২০১৮ পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হওয়ার জন্য নির্ধারিত করা হয়েছে। এই বারই প্রথম যখন বিশ্বকাপ পূর্ব ইউরোপে এবং ২০০৬ ফিফা বিশ্বকাপের পর প্রথমবারের মতো ইউরোপে অনুষ্ঠিত হবে: খেলোয়াড়দের সময় বাঁচানোর জন্য, পূর্ব ইউরোপের বাহিরে ইউরোপীয় রাশিয়ার উরাল পর্বতমালায় একটি স্টেডিয়াম নির্ধারণ করা হয়েছে।

এই প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্বে ৩২টি দল খেলবে, যেখানে রাশিয়া স্বাগতিক দল হিসেবে এবং বাকি ৩১টি দল বাছাইপর্বের প্রতিযোগিতায় উত্তীর্ণ হয়ে খেলবে। ১১টি শহরের ১২টি স্টেডিয়ামে সর্বমোট ৬৪টি খেলার সম্পন্ন হবে। ১৫ জুলাই মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে এই আসরের ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে।

এই আসরের বিজয়ী দল ২০২১ ফিফা কনফেডারেশন্স কাপের জন্য উত্তীর্ণ হবে।

আগামী ১৪ই জুন থেকে শুরু হবে বিশ্বকাপের জমজমাট লড়াই। ৩২টি দল, ৬৪টি ম্যাচ এবং একটি মাত্র ট্রফি। এক মাসের জমজমাট লড়াই শেষে নির্ধারণ হবে ১৫ই জুলাই।

মস্কোর লুজনিকি স্টেডিয়ামে শুরু হবে সবুজ মাঠে পায়ের কারুকাজের লড়াই। পুরো রাশিয়া ঘুরে আবার সেই লুজনিকিতেই শেষ হবে বিশ্বকাপের আসর। রাশিয়া বিশ্বকাপের খেলা গ্যালারিতে বসে দেখার সৌভাগ্য হাতেগোনা ক’জনের হলেও টেলিভিশনে খেলা দেখার সুযোগ পাচ্ছেন ১৬ কোটি বাংলাদেশি। বিশ্বকাপের ৬৪টি ম্যাচ সরাসরি সমপ্রচার করবে মাছরাঙা টেলিভিশন ও নাগরিক টেলিভিশন। এর মধ্যে ৫৬টি ম্যাচ সরাসরি সম্প্রচার হলেও ৮টি ম্যাচ ধারণ করে পরে দেখানো হবে। এছাড়া গুরুত্বপূর্ণ ৩৩টি ম্যাচ দেখাবে বাংলাদেশ টেলিভিশন।

ফিফার কাছ থেকে মূল সম্প্রচার স্বত্ব কিনেছে সনি মিডিয়া। তাদের কাছ থেকে দুবাইভিত্তিক এলএসডি মিডিয়ার হাত বদল হয়ে বাংলাদেশের সম্প্রচার স্বত্ব কিনেছে স্কয়ার গ্রুপের মিডিয়া কম, কে স্পোর্টস, জিরো মিডিয়া ও জাদু মিডিয়া লিমিটেড। এই চার কোম্পানির কনসোর্টিয়ামে বিশ্বকাপ ফুটবল বাংলাদেশে দেখাবে উক্ত তিন টিভি।

উল্লেখ্য, মাছরাঙা টিভি এবার দ্বিতীয়বারের মতো বিশ্বকাপ ফুটবল সরাসরি সম্প্রচার করছে। ব্রাজিল বিশ্বকাপের সবকটি খেলা মাছরাঙার টিভি সরাসরি সম্প্রচার করেছিলো। গত বিশ্বকাপে তাদের সঙ্গে ছিলো জিটিভি ও বিটিভি।