ফ্রান্সের বিপক্ষে বিশ্ব অন্য এক আর্জেন্টিনাকে দেখবে দর্শক।

3971

দ্বিতীয় রাউন্ডে পা রাখতে এবার কম কাঠখড় পোড়াতে হয়নি আর্জেন্টিনাকে। শেষ মুহুর্তের গোলে দ্বিতীয় পর্বে ওঠেছে তারা। দল হিসেবে তারা কতটা মেসিনির্ভর চলতি বিশ্বকাপে আবারও সেটা প্রমাণিত হয়েছে।
জয় পেতে হলে মাঠে মেসিকেই কিছু করতে হবে। এটা যেন অঘোষিত নিয়ম হয়ে দাঁড়িয়েছে দলটির জন্য। অন্যথায় নিষ্প্রভ আর্জেন্টিনা।

মেসির ওপর অতিনির্ভরতা নিয়ে আগেও কম সমালোচনার মুখে পড়তে হয়নি আর্জেন্টিনাকে। তবে সাবেক আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড হার্নান ক্রেসপো হাঁটছেন উল্টো পথে। বিষয়টিকে স্বাভাবিক হিসেবেই দেখছেন তিনি। ক্রেসপো মনে করেন, শুধু আর্জেন্টিনা নয়, বার্সালোনাও অনেকটাই মেসিনির্ভর।

এবারের আসরে শুরুটা ভালো না হলেও ঠিক সময়ে দলের ত্রাতা মেসিই। গত মঙ্গলবার নাইজেরিয়ার বিপক্ষে স্বরূপে ফেরেন মেসি।

আর্জেন্টিনার জার্সিতে ৬৪ ম্যাচে ৩৫ গোল করা ক্রেসপো মেসি নির্ভরশীলতাকে স্বাভাবিক ঘটনা হিসেবে দেখতে আগ্রহী, বিশ্বসেরা খেলোয়াড়ের ওপরই দল নির্ভর করে। বার্সালোনাও মেসিনির্ভর। যেমনটা পর্তুগাল এবং রিয়াল মাদ্রিদের ক্ষেত্রে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। গ্রেট খেলোয়াড়ের ওপর দলের নির্ভরশীলতা স্বাভাবিক এবং যৌক্তিক।

নাইজেরিয়ার বিপক্ষে জয় মেসিদের মানসিক চাপ কাটাতে সাহায্য করবে বলে মনে করেন তিনি, খেলোয়াড়দের জন্য এটা ছিল বাঁচা-মরার লড়াই। সেই পরীক্ষায় তারা ভালোভাবেই উতরে গেছে। এটাই তাদের আগামী ম্যাচে পথ দেখাবে।

আগামীকাল নকআউট পর্বে তারণ্যনির্ভর ফ্রান্সের মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা। স্বাভাবিকভাবেই এ মহারণে যে জিতবে কোয়ার্টারে উঠে যাবে। হেরে গেলে বাড়ি ফিরবে।